কবিতা

নির্বোধের ঈশ্বর

আমরা আবার জন্ম নেব এই আশায় আকাশ ধরণীতে বৃষ্টি ঝরায় না,
ওই মেঠো পথ আর শহুরে পথ মিলে মিশে একাকার করে
একটা ল্যাণ্ডস্কেপ হবে –
কোন চিত্রকর তা ভাবেন না।

সবাই এক পৃথিবীর জল-হাওয়ায় বড় হলেও – যার যার পথ ভিন্ন
ভিন্ন সবার দেশ, গ্রাম আর মহল্লা।

আমাদের হাতের পাঁচও সমান নয়
আমরা একই উচ্চতা থেকে নিঃশ্বাসও নেই না।
আমাদের অনেক জাত, অনেক রঙ, অনেক ধর্ম, অনেক ঈশ্বর,

সে ঈশ্বর নির্বোধের ঈশ্বর!
মানুষের ঈশ্বর, যার নামে আমরা যুদ্ধ করি পৃথিবীর সীমান্তে।

পৃথিবীর মানচিত্রের যে বিভাজন তা সৃষ্টিকর্তা করেননি।
এইটুক বোধ নেই মানুষের-
অথচ পাখিরা পেয়েছে একটা পুরো আকাশ আর সীমানাবিহীন প্রান্তরেখা-
এইটুকু বিচার নেই মানুষের।

আমাদের ঈশ্বর নির্বোধের ঈশ্বর।

মন্তব্য