এক যে ছিল মগের মুল্লক –

এদেশে আসলে কি হচ্ছে? হরিলুট? নাকি জনগনের টাকাকে নিজের টাকা মনে করে যা খুশি করে যাওয়া।

দুর্নীতিতে আমরা যতটা অভিজ্ঞ আর কিছুতে কিন্তু অতটা নই। নিচে সংবাদ এর স্ক্রীনশট দিলাম। এই রকম খবর দেখলে মনে হয় আমরা একটা বায়বীয় জাতি। যাকে ফু দিলেই উড়ি।

এক যে ছিল মগের মুল্লক - 1

সোর্সঃ প্রথম আলো

এক যে ছিল মগের মুল্লক - 2

সোর্সঃ বিডি নিউজ।

জনগনের সেবক বলে যারা নিজেদের পরিচয় দেন তারা আসলে রাজার পাইক পেয়াদার মত আচরন করছেন। অর্থহীন খরচ, চক্ষুলজ্জাও হয় না এদের? একজন মন্ত্রী বা সচিব এতই গরীব যে তাকে মোবাইল কিনে দিতে হবে? কয়টাকা কামিয়েছে ইধার কা ফাইল উধার করে ,তার হিসাব রাখেন কেউ?

দুদক নামে একটা …ল আছে কার চুল যে তারা ছিড়তে ব্যস্ত থাকে?

মোবাইল কিনতে ৭৫ হাজার টাকা লাগবে কেন? বেশ ভালো মানের মোবাইল ২৫-৩০ হাজারের মধ্যে হয়ে যায়। তারপর আবার দরিদ্রদেরকে মোবাইল বিলও দিয়ে দিতে হবে।

পুরো বিষয়টা হালাল করার জন্যে বিচারপতিদেরকেও অন্তর্ভুক্ত করার প্রক্রিয়া রয়েছে।

যাক, আশার বিষয় হল এই টাকার পরিমান খুব বেশি না। চাইলে তারা মোবাইল প্রতি ২-৩ লাখও নিতে পারত। কম নিয়ে কিছু টাকা বাঁচিয়ে দিয়েছে।

মোবাইল সার্ভিসিং এর জন্য কত বরাদ্দ হল তা কিন্তু এই রিপোর্টে পেলাম না। মনে হয় তার টেন্ডার ইন্টারন্যাশনাল দরপত্র আহ্বান করে নেয়া হবে।

ভোদাই পাবলিক হুদাই চিল্লাচিল্লি করতেসে।

এক যে ছিল মগের মুল্লক - 3

এইখান থেকে অনেক কিছু শিখার আছেঃ

  • মোবাইল কেনার জন্য মন্ত্রী এবং সচিবদের পর্যাপ্ত টাকা নাই, কারন তাদের বেতন ভাতা খুব কম।
  • তারা অত্যন্ত সৎ বলে দরিদ্র এবং তাদের মোবাইলে রিলোড করার টাকাও থাকে না, কাজেই এটা সরকার কতৃক ভরন পোষন করা হবে।
  • ৭৫ হাজার টাকার নিচে ভালো মোবাইল পাওয়া যায় না, অন্তত বাংলাদেশে না।
  • এতদিন তারা দেশের কাজকর্ম অনেক কষ্টে করেছেন কারন পর্যাপ্ত মোবাইল এলাউয়েন্স ছিল না। এবার জম্পেশ ভাবে  যোগাযোগ হবে, কাজ হবে।

বাই দা রাস্তা, নিন্দা জানায়া কোন লাভ নাই। যা হবার হবেই।

2 Comments

  1. Masud rahnan May 23, 2018

Leave a Reply

%d bloggers like this: